মুগডাল দিয়ে কলিজা ভুনা

মুগডাল দিয়ে কলিজা ভীষন সুন্দর একটা সাইড ডিস। সকাল অথবা সন্ধ্যার নাশতায় রুটি বা পড়টা দিয়ে খুব ভালো লাগে। এখন দেখাচ্ছি মুগডাল দিয়ে কলিজা রান্নার প্রক্রিয়া।

ওপরের ভিডিওটি দেখতে সমস্যা হলে ডেইলিমোশনের এই লিঙ্কে গিয়েও ভিডিওটি দেখতে পারেন।

তৈরীতে যা যা লাগছে –

  1. মুগ ডাল – ১ কাপ
  2. কলিজা – ২০০ গ্রাম
  3. তেজপাতা – ২টি
  4. বড় এলাচ – ২টি
  5. ছোট এলাচ – ৫/৬টি
  6. গোলমরিচ – ৬/৭টি
  7. লং – ৫/৬টি
  8. দারুচিনি – ছোট ২টুকরো
  9. পেঁয়াজ – ৩টি
  10. কাঁচা মরিচ – ৪/৫টি
  11. আদা বাটা – ১ চা চামুচ
  12. রসূন বাটা – ১ চা চামুচ
  13. মরিচের গুঁড়ি – ১ চা চামুচ
  14. ধনে  গুঁড়ি – ১ চা চামুচ
  15. লবণ
  16. হলুদের  গুঁড়ি – আধা চা চামুচ
  17. জিরা সহ গরম মসলার গুঁড়ি – ১ চা চামুচ
  18. তেল

কোনো প্রশ্ন থাকলে বা কেমন লাগলো অনুগ্রহ করে মন্তব্যে জানাবেন।


  • Ruhena BLaskar

    আপা, মুগ ডাল রান্না করতেত অনেক সময় নেয় আবার কলিজা বেশি রান্না করলে শক্ত হয়ে যায় কিন্ত আপনিত কলিজাটা আগে দিয়ে পরে ডালটা দিলেন তাহলেত কলিজা অনেক শক্ত হয়ে যাবে । তাছারা কলিজা রান্না করতে অনেক রসুন লাগে তানাহলে অনেকে কলিজা খেতে পারেনা আপনিত অনেক কম রসুন দিয়েছেন । আমি যদি কলিজা তেলে আগে নাদিয়ে ডালটা আগে দেই ত কোন অসুবিধা আছে ?

    • Rumana Azad

      কলিজা রান্না করলেতো শক্ত হবেই, কাঁচার মতো নরম থাকবেনা। মাংস বা কলিজা নরম থাকলে কিন্তু সেটা থেকে কৃমি হতে পারে, সেটা মাথায় রাখবেন। আর আপু, রান্নাটা সম্পুর্ণই এক্সপেরিমেন্টের ব্যাপার। আপনি আপনার পছন্দমাফিক উপাদান আগে পরে করে দেখতে পারেন, যেমনটা আপনার ভালো লাগে। উপরে যেভাবে দেখিয়েছি, সেভাবে ভালো না লাগলে আপনি আপনার মতো করে উপাদান বাড়াতেও পারেন আবার কমাতেও পারেন। মোট কথা আপনাকে একটু এক্সপরিমেন্ট করে দেখতে হবে।